খুলনা-কলকাতা নতুন ট্রেন সার্ভিস উদ্বোধন

November 9, 2017 at 9:55:03 PM |

বাংলাদেশ-ভারত সম্পর্ক যে উচ্চতায় উন্নীত হয়েছে, তা প্রতিবেশী যেকোন দেশগুলোর জন্য দৃষ্টান্ত বলে মন্তব্য করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।  সকালে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যেমে খুলনা-কলকাতা নতুন ট্রেন সার্ভিস বন্ধন এক্সপ্রেসের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে তিনি এ কথা বলেন। ভিডিও কনফারেন্সে দিল্লি থেকে সরাসরি যোগ দিয়ে ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি বলেন, প্রতিবেশি দেশের সাথে যোগাযোগ যত বাড়বে ততই মজবুত হবে পারস্পরিক সম্পর্ক।

বাংলাদেশ ও ভারত সম্প্রীতির বন্ধন আরো জোরদারের অংশ হিসেবে চালু হল খুলনা-কলকাতা রুটের নতুন ট্রেন বন্ধন এক্সপ্রেস। সকালে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে গণভবন থেকে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এবং দিল্লি থেকে ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির সাথে উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে যোগ দেন পশ্চিমবঙ্গের মূখ্যমন্ত্রী  মমতা বন্দোপাধ্যায়। ভিডিও কনফারেন্সে এছাড়াও উদ্বোধন করা হয় দ্বিতীয় ভৈরব এবং তিতাস সেতু।

উদ্বোধনীতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেন, শুধু রেলের না এই বন্ধন দুদেশের জনগণের ভ্রাতৃত্বপূর্ণ সম্পর্ক আরো মজবুত করবে। যোগাযোগের এই সেতুবন্ধন বাংলাদেশ ও ভারতের সার্বিক আর্থসামাজিক উন্নয়নেও ভূমিকা রাখবে।

ভারতের প্রধানমন্ত্রী বলেন, যোগাযোগসহ সম্পর্কের সব ক্ষেত্রে প্রতিনিয়ত এগিয়ে চলছে দুদেশের বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্ক। এ ধারা আগামীতেও অব্যাহত থাকবে বলে আশা জানান তিনি।

আর হাওড়ায় নিজ কার্যালয় নবান্ন থেকে পশ্চিমবঙ্গের মূখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রীকে ‘পূজনীয়’ হিসাবে উল্লেখ করে বলেন, আগামীতে বাংলাদেশ ও ভারতের সম্পর্ক আরো সৃদৃঢ় হবে।

বন্ধন এক্সপ্রেস চালু হওয়ায় এখন ঢাকা থেকে ট্রেন ছাড়ার আগেই বাংলাদেশ অংশের ইমিগ্রেশন সম্পন্ন হবে। আর গন্তব্য শেষে কলকাতায় হবে ভারতীয় অংশের ইমিগ্রেশন।