অন্যান্যবাংলাদেশরাজনীতি

অর্থনৈতিক মুক্তিতে কাজ করছেন শেখ হাসিনা সরকার

প্রকৌশলী মো. আবদুস সবুর আওয়ামী লীগের বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিষয়ক সম্পাদক এবং ইঞ্জিনিয়ার্স ইনস্টিটিউশন এর প্রেসিডেন্ট প্রকৌশলী মো. আবদুস সবুর বলেছেন,জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান দেশকে স্বাধীনতা দিয়েছেলেন। কিন্তু বঙ্গবন্ধু দেশকে অর্থনৈতিকভাবে মুক্তি দেওয়ার সময় পাননি। সেই কাজটি তাঁরই সুযোগ্য কন্যা জননেত্রী শেখ হাসিনা দক্ষতার সঙ্গে করে যাচ্ছেন।

জননেত্রী শেখ হাসিনা দেশকে অর্থনৈতিকভাবে স্বাবলম্বী করছেন। দেশে আজ উন্নত দেশের দিকে এগিয়ে যাচ্ছে। জাতির পিতার সুযোগ্য কন্যা আজ বাংলাদেশকে একটি উন্নয়নের রোল মডেলে পরিণত করেছে।শনিবার রাজধানীর ইঞ্জিনিয়ার্স ইনস্টিটিউশনের বঙ্গবন্ধু প্রকৌশল পরিষদ আয়োজিত মহান স্বাধীনতা ও জাতীয় দিবস উপলক্ষে এক আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

আওয়ামী লীগের বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিষয়ক সম্পাদক বলেন, জাতির পিতা বেঁচে থাকলে বাংলাদেশ আরো অনেক আগেই উন্নত দেশের কাতারে চলে যেতো। কিন্তু হায়েনার দলেরা জাতির পিতাকে বাঁচতে দেয়নি। যারা বঙ্গবন্ধু ও তার পরিবারের সদস্যদের হত্যা করেছে তাদের বিচার হয়েছে। আর যারা পলাতক রয়েছে তাদের দেশে এনে বিচার করা হবে।

প্রকৌশলী মো. আবদুস সবুর বলেন,বঙ্গবন্ধু কন্যা জননেত্রী শেখ হাসিনার সততা, দক্ষতা এবং মেধা দিয়ে দিন-রাত পরিশ্রম করে যাচ্ছেন বলেই বাংলাদেশ এগিয়ে যাচ্ছে। তিনি বাংলাদেশের মানুষের ভাগ্য উন্নয়নে কাজ করে যাচ্ছেন। আওয়ামী লীগ সরকার যখনই ক্ষমতায় এসেছে তখনই দেশের মানুষের জন্য কাজ করেছে। দেশের মানুষ কিছু পেয়েছে।

অথচ বিগত বিএনপি-জামায়াত জোট সরকারের আমালে দেশে জঙ্গীবাদ, সন্ত্রাস, লোটপাট, মাদকে ভরপুর ছিল। কিন্তু জননেত্রী শেখ হাসিনার সরকার ক্ষমতায় এসে এসব কঠোর হাতে নিয়ন্ত্রণ করেছেন। বিশ্বের বিভিন্ন দেশ এখন বাংলাদেশকে অনুসরন করছে। এটা শুধু সম্ভব হয়েছে জননেত্রী শেখ হাসিনার সততা এবং দক্ষতার জন্য।

বঙ্গবন্ধু প্রকৌশলী পরিষদের সিনিয়র সহ সভাপতি প্রকৌশলী রহমতুল্লাহর সভাপতিত্বে এবং সংগঠনের সাংগঠনিক সম্পাদক এবং আইইবি’র সম্মানী সহকারী সাধারণ সম্পাদক প্রকৌশলী কাজী খায়রুল বাশারের সঞ্চালনায় আরো বক্তব্য রাখেন, সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক ও আইইবি’র ভাইস-প্রেসিডেন্ট প্রকৌশলী নুরুজ্জামান, সংগঠনের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক ও আইইবি’র সম্মানী সাধারণ সম্পাদক প্রকৌশলী খন্দকার মনজুর মোর্শেদ, আইইবি’র সাবেক প্রেসিডেন্ট প্রকৌশলী নুরুল হুদা প্রমুখ।

বাংলাটিভি/ফাতেমা

 

সংশ্লিষ্ট খবর

Back to top button
Close