দেশবাংলা

ঝিনাইদহে হুমকির মুখে কালোমুখো হনুমান

ঝিনাইদহের মহেশপুরের প্রত্যন্ত অঞ্চল ভবনগর গ্রামে দীর্ঘদিন ধরে বসবাস করছে বিরল প্রজাতির কালোমুখো হনুমান। পরিবেশবান্ধব এই প্রাণীটি বর্তমানে চরম হুমকির মুখে পড়েছে। স্থানীয়রা ফসল রক্ষার অজুহাতে কয়েকবছর আগে একযোগে হত্যা করেছিলো অর্ধশতাধিক বিরল প্রজাতির কালোমুখি হুনুমান।

সেসময় হনুমান হত্যার ঘটনাটি আদালত পর্যন্ত গড়ায়। সম্প্রতি খাদ্য সংকট, গাছগাছালি নিধনের কারণে খাদ্যের সন্ধানে লোকালয়ে চলে আসছে এসব হনুমান। ফলে, মৌসুমি ফসল রক্ষায় স্থানীয়রা ফাঁদ পেতে হনুমান মারছে।

ঝিনাইদহের মহেশপুর উপজেলার ভবনগর গ্রামে গেলে কানে ভেসে আসবে,বিকট শব্দে পেটানো টিন বা ঢোলের শব্দ।খাদ্যের সন্ধ্যানে আসা হুনুমান তাড়াতে, গ্রামবাসীর এমন কৌশল। দলে দলে মা হুনুমানগুলো বাচ্চা কোলে নিয়ে লোকালয়ে এসে, এমন বিকট শব্দে দিশেহারা হয়ে পড়ে। অথচ একসময় এখানকার বন-বাদাড়ে মনের আনন্দে ঘুরে বেড়াতো হনুমানের দল।

নিয়মিত বন উজাড় হওয়ায়, খাদ্য ও আশ্রয়স্থল সংকটের মুখে এলাকা ছাড়ছে এ প্রাণী। আর কৃষকরা বলছেন, দলবেঁধে ক্ষেতের ফসলের ব্যাপক ক্ষতি করে এই হুনুমান। তাই মাঠজুড়ে হরেক রকম ফাঁদ আর নেটজালের বিস্তার। হনুমানের স্থায়ী আবাসস্থল তৈরি ও সংরক্ষণের দাবি কৃষক ও এলাকাবাসীর।

পরিবেশের ভারসাম্য ও জীববৈচিত্র রক্ষায় উর্দ্ধতন মহলে অবহিত করার কথা জানান, বন বিভাগের কর্মকর্তা আতিয়ার রহমান। তবে, এ বিষয়ে প্রশাসনের সু-দৃষ্টি চেয়েছেন, স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান আমান উল্লাহ।

এদিকে, হনুমান রক্ষায় তাদের আবাসস্থলসহ সংরক্ষণের ব্যবস্থার কথা জানালেন, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সুজন সরকার। আর পরিবেশবান্ধব বিলুপ্ত প্রায় এই প্রাণীটি বাঁচাতে, সরকারের দ্রুত পদক্ষেপ চাইছেন স্থানীয়রা।

জিয়াউর রহমান, ঝিনাইদহ প্রতিনিধি

সংশ্লিষ্ট খবর

Back to top button
Close