বাংলাদেশজনদুর্ভোগ

আবারো চড়া ভোজ্য তেলের দাম

সপ্তাহের ব্যবধানে ভোজ্যতেলের বাজার আবারো চড়েছে। বোতলজাত ও খোলা সয়াবিন তেল বিক্রি হচ্ছে, লিটারে ৬ থেকে ১০ টাকা বেশি দামে। বিক্রেতারা দাম বৃদ্ধির জন্য নানান যুক্তি দাঁড় করালেও, ক্রেতাদের দাবি সিন্ডিকেটের কারসাজীতে অস্থির হয়ে উঠছে এই নিত্যপণ্যের বাজার।

বাজারে ক্রমশ বেড়েই চলেছে নিত্যপন্য ভোজ্যতেলের দাম। খোলা সয়াবিনের দাম বেড়েছে কেজিতে ৩ থেকে ৫ টাকা। আর বোতলজাত সয়াবিন তেল লিটারে বেড়েছে ৫ থেকে ১০ টাকা পর্যন্ত। এছাড়া পামওয়েলও লিটারে ৬  থেকে ৭ টাকা বেড়েছে।

এছাড়া বোতলজাত বিভিন্ন ব্র্যান্ডের তেলের লিটার প্রতি দাম ১২০ থেকে ১২৫ টাকা, যা গত সপ্তাহে ছিল ১১৪ থেকে ১১৮ টাকা।

এদিকে, করোনার কারণে আমদানিকরা তেলে খরচ বেড়ে যাওয়াকে দায়ী করছেন ব্যবসায়ীরা। এছাড়া বর্তমানে সরবরাহ কম, তাই দাম বৃদ্ধি পেয়েছে বলে জানান বিক্রেতারা।

তবে বিক্রেতাদের এমন যুক্তি মানতে নারাজ সাধারণ ক্রেতারা। তেলের বাজারের অস্থিরতার পেছনে সিন্ডিকেটের কারসাজী রয়েছে বলে মনে করেন সাধারণ মানুষ। রান্নার অপরিহার্য এ নিত্যপণ্যটি বাজার নিয়ন্ত্রণে কঠোর নজরদারির দাবি তাদের।

দ্রব্যমূল্যের এমন অস্থিরতায়, ব্যবসায়ীরা দাম বাড়িয়ে দিয়ে পার পেলেও ভোগান্তির ভার পরে ক্রেতাদের ঘাড়েই। মাসের বাজার খরচের লাগাম টানতে গিয়ে হিমসিম খান মধ্য আয়ের মানুষ।

আরমান কায়সার, বাংলা টিভি

সংশ্লিষ্ট খবর

Back to top button