ক্রিকেটখেলাধুলা

সব ধরনের ক্রিকেট থেকে গম্ভীরের বিদায়

সব ধরনের ক্রিকেট থেকে অবসরের ঘোষণা দিয়েছেন ভারত জাতীয় ক্রিকেট দলের একসময়কার নির্ভরযোগ্য ওপেনার গৌতম গাম্ভীর। ১৯৯৯-২০০০ মৌসুমে ভারতীয় ক্রিকেটের সঙ্গে পথচলা শুরু হয়েছিল তার। প্রায় দুই দশক পর সব ধরনের ক্রিকেট থেকে বিদায়ের ঘোষণা দিলেন ভারতের হয়ে ২০১১ বিশ্বকাপ জয়ী এ তারকা।

৪ ডিসেম্বর নিজের টুইটার একাউন্ট থেকে এক আবেগঘন পোস্টের মাধ্যমে অবসরের এই ঘোষণা দেন ১৫ বছর ভারতের হয়ে খেলা গম্ভীর। এছাড়া নিজের ফেসবুক একাউন্ট থেকেও এক ভিডিও বার্তা পোস্ট করেছেন তিনি।

৩৭ বছর বয়সী গম্ভীর ভারতের হয়ে ৫৮ টেস্ট, ১৪৭ ওয়ানডে ও ৩৭টি টি-টোয়েন্টি ম্যাচ খেলে সব ফরম্যাট মিলিয়ে ১০ হাজারের বেশী রান সংগ্রহ করেছেন।

টিম ইন্ডিয়ার হয়ে গম্ভীর সাদা পোষাকে ডাক পান ২০০৪ সালে। ৫৮ টেস্ট ৪১.৯৬ গড়ে ৪১৫৪ রান তোলা এই ব্যাটসম্যানের রয়েছে ৯টি সেঞ্চুরি ও ২২টি ফিফটি।

২০০৩ সালে বাংলাদেশ দলের বিপক্ষে ঢাকায় ওয়ানডে ক্রিকেটের মধ্য দিয়ে আন্তর্জাতিকে অভিষেক হওয়া গম্ভীরের ১৪৭টি  ম্যাচ খেলে ১১টি সেঞ্চুরি এবং ৩৪টি ফিফটির সাহায্যে ৩৯.৬৮ গড়ে করেছেন  ৫ হাজার ২৩৮।

আর টি-টোয়েন্টির সংক্ষিপ্ত ফরম্যাটে ৩৭ ম্যাচ খেলে ২৭.৪১ গড়ে ৭টি ফিফটির মাধ্যমে সংগ্রহ করেছেন ৯৩২ রান ।

সেই সাথে প্রথম শ্রেণির ক্রিকেটে তার সংগ্রহ ১৫ হাজার ৪১ রান আর লিস্ট ‘এ’ ক্রিকেটে ১০ হাজার ৭৭ রান।

একটা সময়ে জাতীয় দলের অবিচ্ছেদ্য অংশ থাকা গৌতম গম্ভীর অফ ফর্মের কারণে ২০১২ সালের ডিসেম্বর টি-টোয়েন্টি খেলার পর ভারতীয় দলে আর সুযোগ পাননি।

সবশেষ ওয়ানডে খেলেন ২০১৩ সালের জানুয়ারিতে। এরপর ২০১৪ সালে টেস্ট দলে ফিরলেও প্রত্যাশিত পারফরর্ম করতে পারেননি গম্ভীর।

জাতীয় দল থেকে বাদ পড়লেও আইপিএলে দাপটের সঙ্গেই খেলেছেন গম্ভীর। তার নেতৃত্বে আইপিএলের শিরোপা জিতে নেয় কলকাতা নাইট রাইডার্স।

আইপিএলের সবশেষ আসরে দিল্লির অধিনায়ক ছিলেন গম্ভীর। কিন্তু ব্যক্তিগত এবং দলের বাজে পারফরম্যান্সের কারণে অধিনায়কত্ব ছেড়ে দেন এই ওপেনার।

জাতীয় দল থেকে বাদ পড়ে যাওয়া এই ওপেনার খেলে যাচ্ছেন ঘরোয়া ক্রিকেটে। তবে আগামী বৃহস্পতিবার হতে যাচ্ছে তার শেষ প্রতিযোগিতামূলক ম্যাচ।

৬ ডিসেম্বর থেকে অনুষ্ঠেয় দিল্লী ও অন্ধ্র প্রদেশের মধ্যকার রঞ্জি ট্রফির ম্যাচটি খেলেই সকল ফরমেট থেকে অবসরে যাবেন ২০১১ সালের বিশ্বকাপে ভারতের শিরোপা জয়ের ফাইনালের অন্যতম এই নায়ক গৌতম গম্ভীর।

বাংলাটিভি/এমআরকে

সংশ্লিষ্ট খবর

Close