দেশবাংলা

দেওয়ানগঞ্জ রেলস্টেশনটি নানা সমস্যায় জর্জরিত

জামালপুরের ঐতিহ্যবাহী দেওয়ানগঞ্জ রেলস্টেশনটি প্লাটফর্ম স্বল্পতা ও পরিচ্ছন্নতার অভাবসহ নানা সমস্যায় জর্জরিত। এ রেলপথ দিয়ে রংপুর, গাইবান্ধা, লালমনিরহাট, কুড়িগ্রাম, বগুড়াসহ উত্তর বঙ্গের মানুষ যাতায়াত করে।

এ অঞ্চলে সড়ক পথের যোগাযোগ ব্যবস্থা তেমন ভালো না হওয়ায়, ভরসা  রেলওয়ের ওপর। তাই আধুনিক অবকাঠামো সুবিধাসহ রেলস্টেশনটি সংস্কারের দাবি স্থানীয়দের।

জামালপুরের ঐতিহ্যবাহী দেওয়ানগঞ্জ রেলস্টেশন। একসময় এ স্টেশন ছিল উত্তরবঙ্গের সাথে রেল যোগাযোগের একমাত্র সংযোগ স্টেশন। বর্তমানে এ রেলপথ দিয়ে কুড়িগ্রাম, গাইবান্ধা জেলাসহ আশপাশের কয়েক উপজেলার হাজার হাজার মানুষ যাতায়াত করে। তিস্তা এবং বহ্মপুত্র নামে দুটি আন্তনগর ট্রেনসহ ৭টি ট্রেন চলাচল করে এই স্টেশন দিয়ে।

প্রাচীন এ রেলস্টেশনটি বর্তমানে নানাবিধ সমস্যায় জর্জরিত। তিস্তা ট্রেনের বগির সংখ্যা ১৮টির মধ্যে ৩ থেকে ৪টি বগি প্লাটফর্মের বাহিরে চলে যায়। প্লাটর্ফমের তুলনায় ট্রেন অনেক বড় হওয়ায় যাত্রী সাধারণের ওঠানামা সমস্যা হয়।

এছাড়া এ রুটে যাত্রী সংখ্যা বেশি হওয়ায় এবং ট্রেন স্বল্পতায় যাত্রীদের ঢাকায় আসা যাওয়ায় ভোগান্তি পোহাতে হয়। সিট স্বল্পতাসহ এ অঞ্চলের বিশাল জনগোষ্ঠীর জন্য মাত্র ২টি ট্রেন চাহিদা পূরণ করতে না পারায় আরো একটি নতুন আন্তঃনগর ট্রেনের দাবি স্থানীয়দের।

স্টেশনটি আধুনিকায়নসহ প্রায় ২শ ফিট প্লাটফর্ম বৃদ্ধি করার পাশাপাশি আরো একটি আন্তঃনগর ট্রেনের জন্য রেলওয়ে সংশ্লিষ্টদের সু-দৃষ্টি চেয়েছেন, স্টেশন মাস্টার।

এ অঞ্চলের বিশাল জনগোষ্ঠির কথা ভেবে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ ষ্টেশনের অবকাঠামো উন্নয়নসহ সব সমস্যা সমাধানে দ্রুত ব্যবস্থা নেয়ার দাবি স্থানীয়দের।

তারেক মাহমুদ, দেওয়ানগঞ্জ প্রতিনিধি

সংশ্লিষ্ট খবর

Back to top button
Close