অন্যান্যবাংলাদেশ

করোনা নিয়ন্ত্রণে অ্যান্টিবডি কাজে লাগানোর তাগিদ

ঢাকার বাসিন্দাদের ৪৫ ভাগের দেহে করোনাভাইরাসের অ্যান্টিবডি পাওয়া গেছে। রোগতত্ত্ব, রোগ নিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা প্রতিষ্ঠান (আইইডিসিআর) ও আন্তর্জাতিক উদরাময় গবেষণা কেন্দ্র (আইসিডিডিআর,বি)’র এক গবেষণায়, উঠে এসেছে এ তথ্য।

জনস্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞরা বলছেন, এই সমীক্ষা সারাদেশে চালানো গেলে, প্রাপ্ত ডাটা করোনা নিয়ন্ত্রণে কাজে লাগানো যেত। একই সঙ্গে, যথাযথভাবে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চললে, করোনার দ্বিতীয় প্রকোপ মোকাবিলাও সহজ হবে বলে, মত দিয়েছেন তারা।

প্রকৃত করোনা রোগীর সংখ্যা বের করতে রাজধানী ঢাকায় যৌথভাবে এক সমীক্ষা পরিচালনা করে রোগতত্ত্ব, রোগ নিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা প্রতিষ্ঠান আইইডিসিআর ও আন্তর্জাতিক উদরাময় গবেষণা কেন্দ্র, আইসিডিডিআর,বি।  সম্প্রতি সেই সমীক্ষার ফল প্রকাশ করেছে সংস্থা দু’টি।

গবেষকদের তথ্যমতে, রাজধানী ঢাকার ১২ হাজার ৬৯৯ জন মানুষের নমুনা পরীক্ষা করে ৪৫ শতাংশের শরীরে করোনার অ্যান্টিবডি পজিটিভ মিলেছে। বস্তি এলাকায় এ হার প্রায় ৭৪ ভাগ। আক্রান্তদের ২৪ শতাংশের বয়স ৬০ বছরের বেশি। এ ছাড়া ১৫ থেকে ১৯ বছর বয়সী মানুষের হার ১৮% শতাংশ।

কোভিড-১৯ শনাক্ত হওয়া মানুষের মধ্যে ৯৪ শতাংশই ছিলেন লক্ষণ ও উপসর্গহীন। গবেষণায় লক্ষ্মণ ও উপসর্গ নেই- এমন ৮১৭ ব্যক্তির নমুনা পরীক্ষা করে ৫২৮ জনের শরীরে কোভিড-১৯ শনাক্ত হয়েছে। আর, উপসর্গ ছিল- এমন ৫৫৩ জনের নমুনা পরীক্ষা করে ৪০০ জনের শরীরে সংক্রমণ পাওয়া যায়।

দেরিতে হলেও, এ সমীক্ষাকে স্বাগত জানিয়ে বিশেষজ্ঞরা বলছেন, জেলাভিত্তিক এ কার্যক্রম চালালে আগামীতে করোনা নিয়ন্ত্রণে আনা সহজ হবে।

একই সঙ্গে, এই সমীক্ষা থেকে প্রাপ্ত তথ্য কাজে লাগানোর পাশাপাশি, যথাযথভাবে আরোপিত স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলারও তাগিদ দেন, এই জনস্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞ। আর এসব ইস্যুতে, সরকারের পাশাপাশি জনগণের সতর্কতাও জরুরী বলে মনে করেন, তারা।

বুলবুল আহমেদ, বাংলা টিভি

সংশ্লিষ্ট খবর

Back to top button