বানিজ্য সংবাদঅন্যান্যআইন-বিচারবাংলাদেশমানবসম্পদ

বিদেশগামীদের প্রতারণা থেকে রক্ষায় প্রবাসী কল্যাণ মন্ত্রণালয়েয়ে উদ্যোগ

বিদেশ গমনেচ্ছুদের প্রতারণার হাত থেকে রক্ষায়, রিক্রুটিং এজেন্সির হয়ে কাজ করা মধ্যস্বত্বভোগীদের নিয়মের মধ্যে আনতে উদ্যোগ নিয়েছে প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়। এসব মধ্যস্বত্বভোগী বা দালালরা পরিচিতি পাবেন ‘লোকাল এজেন্ট’ বা স্থানীয় প্রতিনিধি নামে। এরই মধ্যে এ প্রতিনিধি নিয়োগ প্রক্রিয়ায় রিক্রুটিং এজেন্সিগুলোকে সহায়তা দিতে বায়রাকে নির্দেশ দিয়েছে বিএমইটি।

দালালের মাধ্যমে সর্বস্ব হারিয়ে বিদেশে যাওয়া, অতপরঃ নানামুখী নির্যাতনের শিকার। কপাল ভালো থাকলে কেউ কেউ জীবিত ফিরতে পারেন দেশে; অন্যথায় লাশটাও পায় না পরিবার।

 এভাবেই বছরের পর বছর দালালদের প্রতারণার শিকার হয়ে পথে বসেছে লাখো মানুষ। শেষ পর্যন্ত বোধোদয় হয়েছে সরকারের। এসব মধ্যস্বত্বভোগী বা দালালদের নিয়মের মধ্যে আনতে তাদেরকে নিবন্ধনের আওতায় আনার উদ্যোগ নিয়েছে সরকার।

 বায়রা বলছে, পুরো অভিবাসন প্রক্রিয়া ডিজিটালাইজড করলে শুধু স্বচ্ছতাই নয়- অভিবাসন ব্যয়ও কমে আসবে অনেকটা। পাশাপাশি, এর উপকার পাবে মধ্যস্বত্ত্বভোগী দালালসহ বিদেশ গমনেচ্ছুরাও। তবে, এ প্রক্রিয়ায় অভিবাসন সঙ্কটের পুরো সমাধান দেখছেন না ব্র্যাকের অভিবাসন বিষেশজ্ঞ শরিফুল হাসান।

মধ্যস্বত্বভোগীদের নিবন্ধন করা গেলে, বছরে অন্তত ৩ হাজার কোটি টাকা সাশ্রয়ের পাশাপাশি, বিদেশযাত্রায় প্রতারণা কমে আসবে বলেও মনে করছে, বিএমইটি।

বাংলাটিভি/শহীদ

 

 

সংশ্লিষ্ট খবর

Back to top button