বাংলাদেশআইন-বিচারস্বাস্থ্য

কোরবানির হাটে স্বাস্থ্যবিধি না মানলে হাট বন্ধ করে দেয়া হবে

পশুর হাটে স্বাস্থ্যবিধি না মানা হলে সেই হাট বন্ধ করে দেওয়া হবে।এবং ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশন (ডিএনসিসি) এলাকায় নয়টি হাটের জন্য তিনটি ভ্রাম্যমাণ আদালত রয়েছেন জানিয়েছেন ঢাকা উত্তরসিটি মেয়র আতিকুল ইসলাম ।রোববার (১৮ জুলাই) রাজধানীর ভাটারার সাইদ নগর হাট পরিদর্শনে এসে এ কথা বলেন তিনি।

কোরবানির পশুর হাটে স্বাস্থ্যবিধি মানার বিষয়টি দেখা না গেলে, হাটে আগতদের ‘সবার ঢাকা’ অ্যাপের মাধ্যমে অভিযোগ জানানোর জন্য আহ্বান জানান মেয়র। তিনি বলেন, এ বিষয়ে যে কেউ অভিযোগ জানালেই ২৪ ঘণ্টার মধ্যে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।প্রতিটি হাটে পাঁচ জন করে কাউন্সিলর দায়িত্বে আছেন। স্বাস্থ্যবিধি মানতে না দেখলে তাদেরকে বলুন। তাদের বিরুদ্ধেও কোনো অভিযোগ থাকলে আমাদের অ্যাপে জানান।

হাটে আসা বিক্রেতা ও ব্যবসায়ীদের করোনা পরীক্ষার ব্যবস্থা থাকছে জানিয়ে আতিকুল বলেন, এবারই প্রথম আমরা নয়টি হাটে করোনা টেস্ট করানোর ব্যবস্থা রেখেছি ব্র্যাকের সহযোগীতায়। এছাড়াও প্রতিটি হাটে স্বাস্থ্যবিধি মানার জন্য শক্তি ফাউন্ডেশন এবং হাট ইজারাদারদের পক্ষ থেকে হাটে ২০০ জন করে স্বেচ্ছাসেবক থাকছে। ‘মাস্ক আমার সুরক্ষা সবার’ এই স্লোগানকে সামনে রেখে সবাইকে মাস্ক পরতে সচেতন করা হচ্ছে।

আসন্ন ঈদুল আজহায় সবাইকে নির্ধারিত স্থানে পশু কোরবানি করার আহ্বান জানিয়ে আতিকুল ইসলাম বলেন, আমাদের ৫৪টি ওয়ার্ডের প্রতি ওয়ার্ডে ৫টি স্থান অর্থাৎ ২৭০টি স্থান নির্ধারণ করে দেওয়া হয়েছে। সবাই যেন সেসব নির্ধারিত স্থানে কোরবানি করেন সে বিষয়ে অনুরোধ জানাচ্ছি।

হাট পরিদর্শনের সময় স্বাস্থ্যবিধি মানতে গরু বিক্রেতা, ক্রেতাদের পরামর্শ দেন মেয়র, কোনোভাবেই যেন স্বাস্থ্যবিধি পরিপালন বাধাগ্রস্ত না হয়। যেকোনো মূল্যে স্বাস্থ্যবিধি মানানো নিশ্চিত করতে হবে। এজন্য যে যার জায়গা থেকে আমাদের সবাইকে সচেতন হতে হবে।

এসময় ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা সেলিম রেজাসহ ডিএনসিসির ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা এবং স্থানীয় কাউন্সিলররা উপস্থিত ছিলেন।

বাংলাটিভি/ এস

সংশ্লিষ্ট খবর

Back to top button