অন্যান্যবিএনপিরাজনীতি

জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের জনসভায় বক্তারা

ঐক্যফ্রন্টের জনসভায় কাদের সিদ্দিকী,

জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের রাজধানীর সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে আয়োজিত জনসভায় কৃষক শ্রমিক জনতা লীগের সভাপতি

কাদের সিদ্দিকী বলেছেন, বঙ্গবন্ধুর আহ্বানের সাড়া দিয়ে আমরা একদিন স্বাধীনতা এনেছিলাম, এখন ড. কামাল হোসেনের নেতৃত্বে দেশের গণতন্ত্রকে মুক্ত করবো, খালেদা জিয়াকে মুক্ত করবো।

ঐক্যফ্রন্টে যোগ দেওয়া প্রসঙ্গে কৃষক শ্রমিক জনতা লীগের সভাপতি বলেন, আমি বিএনপিতে যোগ দেইনি। আমি ড. কামাল হোসেনের নেতৃত্বে জাতীয় ঐক্যফ্রন্টে যোগ দিয়েছি।

মওদুদ বলেন

বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য মওদুদ আহমদ সংলাপে সাড়া দেওয়ায় সরকারকে স্বাগত জানিয়েছেন।

তিনি বলেন, সংলাপে সমঝোতা না হলে মাঠে নামা ছাড়া কোনো উপায় খোলা নেই।

আন্দোলন ছাড়া কোনো কাজ হবে না। এজন্য নেতাকর্মীদের আন্দোলনের প্রস্তুতি নেওয়ার আহ্বান জানান তিনি।

মাহমুদুর রহমান মান্না…

নাগরিক ঐক্যের আহ্বায়ক মাহমুদুর রহমান মান্না বলেছেন,‘খালেদা জিয়ার জন্য লড়াই করব,তার জন্য জীবন দেব,তাকে মুক্ত করে ছাড়ব।’

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে জাতীয় ঐক্যের ফের সংলাপ প্রসঙ্গে মান্না বলেন, বুধবার যে সংলাপ হবে, সে সংলাপে শুধু মুখে নয়; লিখিত অঙ্গীকার করতে হবে।

গত ১ নভেম্বর জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের সংলাপে রাজনৈতিক মামলার বিষয়ে প্রধানমন্ত্রীর তালিকা চাওয়া প্রসঙ্গে তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ

হাসিনা সেই সংলাপে মির্জা ফখরুলের কাছে তালিকা চেয়ে প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন। কিন্তু প্রধানমন্ত্রী আশ্বাস দেন একদিকে,আর অন্যদিকে নির্বিচারে গ্রেফতার করা হচ্ছে।

ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেন

বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেন তার বক্তব্যে বলেন,

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে বুধবারের সংলাপে জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের সাত দফা দাবির বিষয়ে ফয়সালা না হলে আন্দোলনের মাধ্যমে দাবি আদায় করা হবে।

ড. মোশাররফ বলেন,আজকের সমাবেশ সাত দফা দাবির পক্ষের সমাবেশ।

এই সাত দফা দেশের জনগণের দাবি। দেশের জনগণ সাত দফা দাবির পক্ষে ঐক্যবদ্ধ। তাই আমরা দাবি আদায় করেই ঘরে ফিরব।

সরকারের উদ্দেশে তিনি বলেন, বুধবার ফয়সালা করুন, সমাধান দিন। যদি সাত দফা দাবি না মানেন,

তাহলে আন্দোলনের মাধ্যমে দাবি আদায় করা হবে।

মঈন খান….

বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. আব্দুল মঈন খান বলেছেন ভবিষ্যতে দেশে জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট গণতন্ত্র ও সুশাসন নিশ্চিত করবে।

‘আজকের বাংলাদেশ ক্রান্তিকাল অতিক্রম করছে।

এদেশের গণতন্ত্র ধ্বংস করা দেওয়া হয়েছে। একদলীয় বাকশাল কায়েম করা হয়েছে’।

সরকারকে সাত দফা দাবি মেনে নেওয়ার আহ্বান জানিয়ে বিএনপির এই জ্যেষ্ঠ নেতা বলেন,

জোর করে কোনো নির্বাচন করা যাবে না।

তারা যদি মনে করে, আবারও ১৪ সাল মার্কা নির্বাচন করবেন, এটা আর বাংলার মাটিতে হবে না।

ভোটাধিকার ফিরিয়ে দিতে হবে। খালেদাকে মুক্তি দিতে হবে।’

মির্জা আব্বাস…

বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য মির্জা আব্বাস বলেছেন গুম-খুন-গ্রেফতারে আন্দোলন থামবে না , প্রলয় আসছে,

চোখ বন্ধ করে থাকলেও এই প্রলয় বন্ধ হবে না।

তিনি বলেন, ভাবতে পারেন গুম-খুন-গ্রেফতার করলে আন্দোলন থেমে যাবে। কিন্তু না আন্দোলন থামবে না।

জাফরুল্লাহ..

গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের প্রতিষ্ঠাতা ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরী তার বক্তব্যে বলেছেন উন্নয়নের জোয়ারে সরকারের চোখে ছানি পড়েছে।

তিনি বলেন, আপনারা জানেন আমি একজন মুক্তিযোদ্ধা ও চিকিৎসক। তাহলে প্রশ্ন হলো আমি এখানে কেন এসেছি।

আজকে উন্নয়নের জোয়ারে সরকারের চোখে ছানি পড়েছেন। আপনাদের এই আওয়াজ তাদের কানে পৌঁছায় না।

সুলতান মনসুর.

সরকারকে ৭ দফা দাবি মেনে নেওয়ার আহ্বান জানিয়ে ঐক্যফ্রন্টের অন্যতম নেতা ডাকসুর সাবেক ভিপি সুলতান মোহাম্মদ মনসুর বলেছেন,

খালেদা জিয়া জেলখানায় আর উনারা ভাবছেন এই দেশে থাকবেন। সোজা পথে ঘি উঠবে না। বাঁকা পথে হাঁটতে হবে।

সুলতান মনসুর বলেন, সংলাপে বসতে বাধ্য হয়েছে সরকার। একবার না আরেকবার বসতে চেয়েছে। ৭ দফা বাস্তবায়ন চাই।

খালেদা জিয়া জেলখানায় আর উনারা ভাবছেন এই দেশে থাকবেন। সোজা পথে ঘি উঠবে না।

বাঁকা পথে হাটতে হবে। কামাল হোসেনের নেতৃত্বে সংলাপে যদি মেনে নেয় তবে ভালো।

বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরের সভাপতিত্বে আজকের এই জনসভার প্রধান অতিথি জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের শীর্ষ নেতা ড. কামাল হোসেন।

প্রধান বক্তা জাতীয় সমাজতান্ত্রিক দলের (জেএসডি) সভাপতি আ স ম আবদুর রব, কৃষক-শ্রমিক-জনতা লীগ সভাপতি বঙ্গবীর কাদের সিদ্দিকী,

নাগরিক ঐক্যের আহ্বায়ক মাহমুদুর রহমান মান্নাসহ এ জোটের শীর্ষ নেতারা বক্তব্য দেবেন।

বাংলাটিভি/এসএম/এবি

সংশ্লিষ্ট খবর

Back to top button
Close