আন্তর্জাতিকযুক্তরাষ্ট্র

২৬৪ ইলেকটোরাল নিয়ে জয়ের পথে বাইডেন

মার্কিন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে দৃশ্যত ক্ষমতায় আসার পথে রয়েছেন জো বাইডেন। সরকার গঠনের প্রস্তুতি হিসেবে এরইমধ্যে একটি ট্রানজিশন ওয়েবসাইট চালু করেছেন তিনি। সবশেষ হিসেবে, ২৬৪ ইলেক্টোরাল ভোট নিয়ে অবস্থান করছেন জয়ের দ্বারপ্রান্তে।

এখন এগিয়ে থাকা আরেক ব্যাটলগ্রাউন্ড নেভাদায় জয় পেলেই তিনি পৌঁছে যাবেন ২৭০ ইলেক্টোরাল ভোটের সেই কাঙ্ক্ষিত ‘ম্যাজিক ফিগার’। তবে প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী ক্ষমতাসীন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের এপর্যন্ত  সংগ্রহ ২১৪। তার শিবিরের পক্ষ থেকে এরইমধ্যে ৩টি রাজ্যের ভোট গণনা নিয়ে আপত্তি তুলে আদালতে মামলা ঠুকেছেন।

সারা বিশ্বের শত কোটি চোখ এখন আমেরিকার প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের ফলাফলের দিকে। ভোটের উত্তেজনা-আগ্রহ মার্কিন মুলুক ছেড়ে আছড়ে পড়েছে সবখানে। প্রতীক্ষার প্রহরও শেষ হলো বলে! কারণ যুক্তরাষ্ট্রের ৪৬তম প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত হওয়ার পথে অনেক দূর এগিয়ে গেছেন ডেমোক্র্যাট প্রার্থী জো বাইডেন।

৫৩৮ ইলেক্টোরাল ভোটের মধ্যে ২৬৪ ইলেক্টোরাল ভোট নিয়ে অবস্থান করছেন জয়ের দ্বারপ্রান্তে। মার্কিন গণমাধ্যম ফক্স নিউজের তথ্য মতে, পপুলার ভোটের ফলাফলে এখন পর্যন্ত ৪৯ দশমিক ৯ শতাংশ পেয়েছেন বাইডেন। তার কাছাকাছি ট্রাম্প পেয়েছেন  ৪৮ দশমিক ৮ শতাংশ। তার থলিতে এখন পর্যন্ত ২১৪ ইলেকটোরাল ভোট।

এছাড়া এখন পর্যন্ত যেসব রাজ্যের ভোটের ফলাফল পাওয়া যায়নি সেগুলোর মধ্যে আলাস্কায় রয়েছে তিনটি ইলেক্টোরাল ভোট, জর্জিয়ায় ১৬টি, নর্থ ক্যারোলিনায় ১৫টি এবং পেনসিলভানিয়ায় ২০টি। নেভাদায় বাইডেনের জয় নিশ্চিত হওয়ার পর এগুলোর সবগুলোতেও যদি ট্রাম্প জেতেন তাহলেও তার ইলেক্টোরাল ভোট দাঁড়াবে ২৬৮টিতে। ম্যাজিক ফিগার স্পর্শ করতে পারবেন না তিনি।

তবে বাইডেন এগিয়ে থাকার সময়ই নিজেকে জয়ী দাবি করায়, ট্রাম্প ভোট জালিয়াতির অভিযোগ তোলেন। এরইমধ্যে মিশিগান, উইসকনসিন ও পেনসিলভানিয়ার গণনায় আপত্তি তুলে আদালতের শরণাপন্ন হয়েছে ট্রাম্প শিবির। অবশ্য এ মামলাকে ট্রাম্পের ছেলেমানুষি হিসেবে আখ্যায়িত করে কঠোর সমালোচনা করেছেন মিশিগান রাজ্যের নির্বাচন সংক্রান্ত প্রধান কর্মকর্তা জোসলিন বেনসন।

অন্যদিকে সরকার গঠনের প্রস্তুতি হিসেবে এরইমধ্যে একটি প্রেসিডেন্সিয়াল ট্রানজিশন  ওয়েবসাইট চালু করেছে বাইডেন শিবির।

আসাদ রিয়েল, বাংলা টিভি

সংশ্লিষ্ট খবর

Back to top button