আইন-বিচারবাংলাদেশ

মানবতাবিরোধী অপরাধ: লিয়াকত,আমিনুলের মৃত্যুদণ্ড

মানবতাবিরোধী অপরাধের মামলায় হবিগঞ্জের লাখাই থানা আওয়ামী লীগের সাবেক সভাপতি

মো. লিয়াকত আলী এবং কিশোরগঞ্জের আমিনুল ইসলামের মৃত্যুদণ্ডের আদেশ দিয়েছেন

আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনাল।

সোমবার দুপুর সাড়ে ১২টায় আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনালের চেয়ারম্যান বিচারপতি

মো. শাহিনুর ইসলামের নেতৃত্বাধীন তিন বিচারপতির আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনাল এ রায় ঘোষণা করেন।

পলাতক এ দুই আসামির বিরুদ্ধে একাত্তরের মুক্তিযুদ্ধের সময়  হবিগঞ্জ জেলার লাখাই,

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নাসিরনগর ও কিশোরগঞ্জের অষ্টগ্রামে হত্যা, গণহত্যা, অপহরণ, আটক,

নির্যাতন ও লুটপাটসহ মানবতাবিরোধী অপরাধে আনা অভিযোগগুলো প্রমাণিত হয় বলে রায়ে

উল্লেখ করা হয়। তবে এ দুই আসামিই পলাতক রয়েছেন। গতকাল রায় ঘোষণার জন্য আজকের দিন ধার্য করা হয়।

সোমবার রায় ঘোষণার সময় আদালতে রাষ্ট্রপক্ষে ছিলেন আইনজীবী রানা দাশগুপ্ত ও রেজিয়া সুলতানা চমন। আর পলাতক দুই আসামির পক্ষে ছিলেন রাষ্ট্র নিয়োজিত আইনজীবী গাজী এমএইচ তামিম।

তদন্ত রিপোর্ট অনুযায়ী জানা যায়, ২০০৩ সাল থেকে ২০১৩ সাল পর্যন্ত লিয়াকত আলী থানা আওয়ামী লীগের সভাপতি ছিলেন। সভাপতি থাকা অবস্থাতেই যুদ্ধাপরাধের অভিযোগে ২০১০ সালে তার বিরুদ্ধে মামলা হয়।এর আগে ২০১৬ সালের ১৮ মে এই দুই আসামির বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারি করেন ট্রাইব্যুনাল। তাদের গ্রেপ্তার করা সম্ভব না হওয়ায় পলাতক দেখিয়েই বিচার চালিয়ে যাওয়ার সিদ্ধান্ত নেন আদালত। এরপর চলে নিয়মিত বিচারিক প্রক্রিয়া।

মানবতাবিরোধী অপরাধের মামলায় আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনালের দেয়া এটা ৩৫তম রায়।

 

সংশ্লিষ্ট খবর

Back to top button
Close