দেশবাংলা

আখাউড়ায় হঠাৎ ডায়রিয়ার প্রকোপ; ১৬০ শিশু আক্রান্ত

||সাইফুল ইসলাম, আখাউড়া||

আখাউড়ায় হঠাৎ করে দেখা দিয়েছে ডায়রিয়ার প্রকোপ। আজ শনিবার ডায়রিয়ায় আক্রান্ত ২০ শিশু ভর্তি হয়েছে আখাউড়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে আর গত এক সপ্তাহে ভর্তি হয়েছে ১৬০জন শিশু।

শীতের আগমনে আবহাওয়া পরিবর্তন জনিত কারণে রোটা ভাইরাস আক্রান্ত হয়ে শিশুদের এই রোগ হচ্ছে বলে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের মেডিক্যাল অফিসার আফ্রিদ জাহান তুলী জানিয়েছেন।

আজ  উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে গিয়ে দেখাগেছে, ডায়রিয়ায় আক্রান্ত শিশু ও অভিভাবকদের ভীড়। কিছুক্ষণ পরপরই ডায়রিয়া আক্রান্ত শিশুদের নিয়ে আসা হচ্ছে এখানে। হাসপাতালের মহিলা ওয়ার্ড, পুরুষ ওয়ার্ড ভর্তি ডায়রিয়া আক্রান্ত শিশু রোগী।

জায়গায় না থাকায় অনেক রোগীকে হাসপাতালের মেঝেতে চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে। হাসপাতালের বারান্দায় আখাউড়া রহিমপুর গ্রামের আবজাল হোসেন নামে এক ব্যক্তি বলেন, তার বাচ্চার হঠাৎ করে পাতলা পায়খানা শুরু হয়। এক বছরের বাচ্চা।

প্রথমে গ্রামের ডাক্তার দেখায়। এতে কিছু না হলে তাড়াতাড়ি এসে এই হাসপাতালে ভর্তি করেন তার শিশুকে। সেলাইন চলছে। এখন কিছুটা ভালো।

আখাউড়া হাসপাতাল সূত্রে জানাগেছে, শীতের আগমনে গত এক সপ্তাহ ধরে ডায়রিয়ায় আক্রান্ত শিশুর পরিমান বেড়েগেছে। গত এক সপ্তাহে ১৬০ ডায়রিয়ায় আক্রান্ত শিশুকে এই হাসপাতারে ভর্তি করা হয়েছে।

এ ব্যাপারে আখাউড়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের মেডিক্যাল অফিসার আফ্রিদ জাহান তুলী জানায়,  প্রতি বছর শীত আগমনের সময় ডায়রিয়াজনিত রোগীর সংখ্যা বৃদ্ধি পায়। এসময় রোটা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে শিশুদের ডায়রিয়া হয় বেশি।

তিনি জানান, ডায়রিয়া রোগীদের জন্য খাবার স্যালাইন পর্যাপ্ত রয়েছে।  স্যালাইন দেয়া হচ্ছে। হাসপাতালে বেডের স্বল্পতা থাকায় সবাইকে বেডে দেয়া যাচ্ছে না।

বাংলাটিভি/এবি

সংশ্লিষ্ট খবর

Back to top button
Close