দেশবাংলা

হালুয়াঘাটে বাঁধাগ্রস্থ রাস্তা নির্মাণ কাজ

ময়মনসিংহের হালুয়াঘাটে সড়ক ও জনপথ বিভাগের বেদখলকৃত ভূমি উচ্ছেদ না করায়, রাস্তা নির্মাণ কাজ বাঁধাগ্রস্থ হচ্ছে। উপজেলাবাসীর দীর্ঘদিনের স্বপ্ন হালুয়াঘাট-ময়মনসিংহ আঞ্চলিক মহাসড়কটির, হালুয়াঘাট বাজার অংশের সংস্কার ও সম্প্রসারণ।

কিন্তু কতিপয় অবৈধ দখলধারদের কারণে ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠানের কার্যক্রম বন্ধ হওয়ার উপক্রম হয়েছে। অবৈধ দখলদারদের উচ্ছেদ করে আঞ্চলিক মহাসড়কটির সংস্কার ও সম্প্রসারণ কাজ দ্রুত বাস্তবায়নে প্রসাশনের নিকট জোর দাবি জানান এলাকাবাসি।

হালুয়াঘাট-ময়মনসিংহ আঞ্চলিক মহাসড়কটির সংস্কার ও সম্প্রসারণ কাজ দীর্ঘ প্রতিক্ষার পর সম্প্রতি শুরু করা হলেও হালুয়াঘাট বাজারে রাস্তাটির সংস্কার ও সম্প্রসারণ কাজ অবৈধ দখলধারদের কারণে বন্ধ হওয়ার উপক্রম হয়ে পড়েছে। ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠান জনজেবি সড়ক ও জনপথ বিভাগের ভূমি বেদখল হওয়ার কারণে রাস্তাটির উন্নয়ন কার্যক্রম পরিচালনা করতে বাঁধাগ্রস্থ হচ্ছেন।

পার্শ্ববর্তী উপজেলা ফুলপুরের জিরু পয়েন্ট থেকে সিমান্তের গোবরাকুড়া স্থলবন্দর পর্যন্ত আঞ্চলিক মহাসড়কটির ২৩.৬৬ কিলোমিটার রাস্তা সরকারের মেগা প্রকল্পের প্রায় ৬৫টি কোটি টাকা ব্যায়ে নির্মিত হচ্ছে। পাশাপাশি সড়কটিতে প্রায় ১৩৫০ মিটার কংক্রিটের আর সিসি রাস্তা নির্মাণ করা হচ্ছে।

কিন্ত অবৈধ দখলদারদের কারণে হালুয়াঘাট বাজারের প্রায় ৬০০ মিটার রাস্তায় কংক্রিটের আর সিসি রাস্তা নির্মাণ করা সম্ভব হচ্ছে না। রাস্তাটি উন্নয়ন কাজ করতে প্রায় ৩৬ ফুট প্রস্থ জায়গার প্রয়োজন কিন্ত রয়েছে ২০ থেকে ২৪ ফুট ফলে বাধাগ্রস্থ হচ্ছে উন্নয়ন কাজ। যদিও চাহিদার চেয়ে দিগুন জায়গা রয়েছে অবৈধ দখলদারিদের নিকট সড়ক ও জনপথ অধিদপ্তরের।

দ্রুত অবৈধ দখলধারদের উচ্ছেদ করতে সম্প্রতি উপজেলা নির্বাহী অফিসার বরাবর লিখিত আবেদন জানিয়ে সহযোগীতা চেয়েছেন সড়ক ও জনপথ অধিদপ্তর সওজ।

এ বিষয়ে সড়ক ও জনপথ অধিদপ্তর সওজ এর উপ-বিভাগীয় প্রকৌশলী আজাহারুল ইসলাম মুঠোফোনে এ প্রতিবেদককে বলেন, অবৈধ দখল দারদের উচ্ছেদ করতে সম্প্রতি উপজেলা নির্বাহী অফিসার বরাবর লিখিত আবেদন জানিয়ে সহযোগীতা চেয়েছেন।

রাস্তাটি উন্নয়ন কাজ করতে প্রায় ৩৬ ফুট প্রস্থ জায়গার প্রয়োজন কিন্ত রয়েছে ২০ থেকে ২৪ ফুট ফলে বাধাগ্রস্থ হচ্ছে উন্নয়ন কাজ। শিঘ্রই উচ্ছেদ অভিযান পরিচালনা করা হবে বলে জানান।

এ বিষয়ে সড়ক ও জনপথ অধিদপ্তর সওজ এর নির্বাহী প্রকৌশলী ওয়াহেদুজ্জামান বলেন, অবৈধ ভাবে দখলকারীদের উচ্ছেদ করতে সড়ক ও জনপথ বিভাগ শিঘ্রই অভিযান শুরু করবেন।নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যে আঞ্চলিক মহাসড়কটির সংস্কার ও সম্প্রসারণ কাজ সমাপ্ত করা হবে বলে জানান।

উপজেলার জনসাধারণ দ্রুত অবৈধ দখলধারদের উচ্ছেদ করে দীর্ঘদিনের স্বপ্ন সড়কটি বাস্তবায়নের জন্য প্রাসাশনের নিকট জোর দাবী জানান।এ বিষয়ে ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান জনজেবি এর প্রতিনিধি সাইট ইঞ্চিনিয়ার কায়সার রহমান রনী জানান, এ পর্যন্ত ৯৯০ মিটার কংক্রিটের আর সিসি রাস্তা নির্মাণ কাজ চলমান রয়েছে।

অবৈধ দখলদারদের উচ্ছেদ না করায় আঞ্চলিক মহাসড়কটির সংস্কার ও সম্প্রসারণ কাজ কিছুটা বিঘ্নসৃষ্টি হচ্ছে। বিষয়টি কর্তৃপক্ষকে অবগত করেছেন বলে জানান। এলাকাবাসী জানান, অবৈধ দখলধারদের উচ্ছেদ করে দীর্ঘদিনের স্বপ্ন সড়কটি বাস্তবায়নের জন্য প্রাসাশনের নিকট জোর দাবী জানান।

হালুয়াঘাট উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মাহামুদুল হক সায়েম বলেন, সড়ক ও জনপথের জায়গা অবৈধ ভাবে দখলকারীদের উচ্ছেদ করতে উপজেলা পরিষদ ও প্রসাশনের পক্ষ থেকে সর্বাত্মক সহযোগীতা করা হবে।

হালুয়াঘাট পৌরসভার মেয়র খায়রুল আলম ভূঞা বলেন, ওয়ার্ক অর্ডার যে ভাবে আছে কাজটি সে ভাবেই করতে হবে। সাময়িক ভাবে দু এক জনের ক্ষতি হলেও তা আমাদের মেনে নিতে হবে।

উপজেলা নির্বাহী অফিসার রেজাউল করিম বলেন, অবৈধ ভাবে দখলকারীদের উচ্ছেদ করতে সড়ক ও জনপথ বিভাগকে সহযোগীতা করা হবে। পাশাপাশি পৌর শহরে যারা সরকারি সম্পত্তি বেদখল করেছেন তাদের কেও উচ্ছেদ করা হবে। সম্প্রতি একটি তালিকা তৈরী করেছেন। দখলকারীদের বিরুদ্ধে শিঘ্রই অভিযান পরিচালনা করবেন বলে জানান।

সংশ্লিষ্ট খবর

Back to top button
Close