দেশবাংলা

প্রাণঘাতি করোনাভাইরাসের প্রকোপ এখন সারাদেশে

প্রাণঘাতি করোনাভাইরাসের প্রকোপ এখন সারাদেশে। জেলায় জেলায় সংক্রমণ ছড়ার পাশাপাশি বাড়ছে মৃতের সংখ্যা। উপসর্গ দেখা দিলে চলছে নমুনা সংগ্রহ ও পরীক্ষা। আর এ সংক্রামণ থেকে রক্ষা পেতে সামাজিক দূরত্ব রক্ষার কোনো বিকল্প নেই বলে মনে করেন চিকিৎসকরা।

পাবনা জেনারেল হাসপাতালের আরো দুজন সিনিয়র স্টাফ নার্স করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। এ নিয়ে জেলায় মোট আক্রান্তের সংখ্যা ১৩ জন। সিভিল সার্জন মেহেদী ইকবাল এতথ্য নিশ্চিত করেন। বরিশালে গেল ২৪ ঘন্টায় আরো ৩ জনের শরীরে করোনা শনাক্ত করা হয়েছে। এরমধ্যে একজন শের-ই বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের সেবিকা। তিনি করোনাভাইরাস ইউনিটে দায়িত্বে ছিলেন। বাকি দুজনের মধ্যে একজন বাবুগঞ্জের অন্যজন মেহেন্দিগজ্ঞ উপজেলার।

হবিগঞ্জের জেলা প্রশাসক কামরুল হাসান করোনায় আক্রাক্ত হয়েছেন। এ তথ্য নিশ্চিত করেন সিভিল সার্জন ডাক্তার একে এম মোস্তাফিজুর রহমান। তিনি জানান, কামরুল হাসান এর নমুনা পরীক্ষার রিপোর্ট পজিটিভ আসে। অধিকতর নিশ্চিত হতে আজ আবারো তার নমুনা পরীক্ষার জন্য পাঠানো হয়েছে।

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় একই পরিবারে ১০ জন করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। নবীনগর জাফরপুর গ্রামের ওই পরিবারের ২জন ইতোপূর্বে জেলা বক্ষব্যাধি হাসপাতালের আইসোলেশনে রয়েছেন। নতুন করে আক্রান্ত হলেন পরিবারের আরো ১০ জন। এছাড়া নবীনগরের একজন স্বাস্থ্যকর্মীও আক্রান্ত হয়েছেন। এনিয়ে জেলায় আক্রান্তের সংখ্যা দাড়িয়েছে ৫৮ জন। লক্ষ্মীপুরের রায়পুর উপজেলায় ১৩ বছরের এক শিশু করোনায় আক্রান্ত হয়েছে। গতরাতে তার নমুনা পরীক্ষার ফল পাওয়া যায়।

চাঁদপুরে রেখা বেগম নামে দুই সন্তানের জননী করোনা উপসর্গ নিয়ে মারা গেছেন। হাজীগঞ্জের ভিআইপি হাসপাতালে তার মৃত্যু হয়। ঝালকাঠিতে নতুন করে আরো ১ জন করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। সম্প্রতি তিনি ভারত থেকে এসেছেন বলে জানা গেছে। এ নিয়ে জেলায় মোট ১২ জন আক্রান্ত হওয়ার খবর নিশ্চিত করেছেন সিভিল সার্জন।

মুন্সীগঞ্জে একদিনে নতুন করে আরও ৩১ জনের করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়েছে। এ নিয়ে জেলায় করোনা আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ১৯৭ জনে।

বাংলা টিভি/রাসেল

সংশ্লিষ্ট খবর

Back to top button
Close