অন্যান্যবাংলাদেশ

দ্বিতীয় দফায় ৩০০ রোহিঙ্গা ভাসানচরে

বুধবার (৬ মে) দিবাগত রাতে বাংলাদেশের জলসীমায় প্রবেশ করার সময় ধরা পড়া প্রায় ৩০০ রোহিঙ্গাকে ভাসানচরে পাঠানো হয়েছে। বৃহস্পতিবার (৭ মে) দ্বিতীয় দফায় তাদের ভাসানচরে পাঠানো হয়। এর আগে গত ৩ মে প্রথম দফায় ৩০ জন রোহিঙ্গাকে ভাসানচরে পাঠানো হয়।

পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় সূত্র জানায়, ২০১৭ সালে আমরা তাদের মানবিক কারণে তাদের জায়গা দিয়েছি। কিন্তু উন্নয়নশীল দেশ হিসেবে আমরা সীমা অতিক্রম করে গেছি; নতুন কাউকে আমরা নিতে রাজি নই।’ ‘আমাদের জলসীমায় কেউ যদি ঢুকে পড়েন, তবে হয়তো তাদের আশ্রয় দিতে পারি এবং সেটি হবে ভাসানচরে।’

উল্লেখ্য, ভাসানচরে বেড়িবাধ নির্মাণ, ঘরবাড়ি, সাইক্লোন শেল্টারসহ অবকাঠামো উন্নয়নের করা হয়। তবে কক্সবাজারে আশ্রয় নেয়া রোহিঙ্গারা সেখানে যেতে অসম্মতি জানায়। জাতিসংঘের পক্ষ থেকেও বলা হয়, ভাসানচরে স্থানান্তরের আগে কারিগরি মূল্যায়ন শেষে রোহিঙ্গাদের মতামতকে গুরুত্ব দিতে হবে।

ফলে সরকারের জোর চেষ্টা ও কয়েকদফা উদ্যোগ সত্বেও সেখানে একজন রোহিঙ্গাও পাঠানো সম্ভব হয়নি।

সংশ্লিষ্ট খবর

Back to top button