অন্যান্য

জাতীয় মানব পাচার দমন সংস্থার প্রেক্ষিত ও ভূমিকা বিষয়ক আলোচনা সভা

রাজধানীতে জাতীয় মানব পাচার দমন সংস্থার প্রেক্ষিত ও ভূমিকা বিষয়ক আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। বুধবার (২৩ সেপ্টেম্বর) সকালে ‘শিশু সুরক্ষা নিশ্চিত করি, পাচারমুক্ত দেশ গড়ি’ স্লোগানে রাজধানীর সিরডাপ মিলনয়তনে, পিসিটিএসসিএন কনসোর্টিয়ামের আয়োজন এ সভার অনুষ্ঠিত হয়।

এতে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন, সাবেক সিনিয়র জেলা ও দায়রা জজ ড.শাহাজাহান সাজু। এসময়,ইনসিডিন বাংলাদেশ নির্বাহী পরিচালক ও পিসিটিএসসিএন কনসোর্টিয়ামের প্রধান এ কে এম মাসুদ আলী, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের মনোবিজ্ঞান বিভাগের অধ্যাপক মোহাম্মদ কামাল উদ্দিন, সিনিয়র সহকারী জজ ও লিগ্যাল এইড অফিসার ঢাকা জজ কোর্ট মো আলমগীর হোসেন।

এছাড়াও উপস্থিত ছিলেন, ঢাকা শ্রম আদালতের লিগ্যাল অফিসার অ্যাডভোকেট মাসুমা রহমান, বাংলাদেশ মানবাধিকার কমিশনের উপপরিচালক রবিউল ইসলাম, ইনসিডিন বাংলাদেশ এর প্রকল্প সমন্বয়কারী অ্যাডভোকেট রফিকুল আলম ও নারী মৈত্রী প্রকল্প সমন্বয়কারী মো মোমেনুল হকসহ বিশিষ্টজনেরা।

         

এসময় বক্তারা বলেন, শিশু ও মানব পচার রোধে সরকারের নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছে। পাচার রোধে সরকারের পাশাপাশি সকল শ্রেণী-পেশার মানুষকে এক সাথে হয়ে শিশু পাচার প্রতিরোধে কাজ করতে হতে।

বর্তমানে ৪জন মানুষ পাচার হলে, তার মধ্যে এক জন শিশু পাচার হয় বলেও জানান, আগত বক্তারা। শিশু ও মানব পচার রোধে আইনই সঠিক প্রয়োগের পাশাপাশি সংস্লিষ্ট দপ্তরের কার্যকারি ভূমিকা পালন করার আহ্বান জানান বক্তরা।

বক্তারা আরো বলেন, দারিদ্রতার সুযোগ নিয়ে এসব পাচারকারীরা নিম্ন আয়ের পরিবারের সাথে নিষ্ঠুর পরিহাস করে থাকেন। কখনো কখনো উচ্চ বেতনের চাকরির লোভ দেখিয়ে মধ্যবিত্ত পরিবারেও হানা দিয়ে থাকেন। তাই ছেলে-মেয়েকে কাজে পাঠানোর আগে অবশ্যই সেখানকার কর্ম পরিবেশ ও ঠিকানা দেখে নিতে হবে। সন্দেহ হলে আইনি সহযোগীতা নিন।

সতর্ক থাকলে তবেই এইসব পাচারকারীদের মোকাবিলা করা সম্ভব হবে। তাই বলছি সতর্ক থাকুন আপনার সন্তানের নিরাপত্তা নিশ্চিত করুন।

মাসুদ রানা, বাংলা টিভি

সংশ্লিষ্ট খবর

Back to top button