দেশবাংলা

ইটনায় দুই গ্রামবাসীর সংঘর্ষ: নিহত ২, আহত ৩০

স্থানীয় টেম্পুস্টেশনে টেম্পুতে লোক উঠানোকে কেন্দ্র করে কিশোরগঞ্জের হাওর অধ্যুষিত ইটনা উপজেলার মৃগা ইউনিয়নে দুই গ্রামবাসীর সংঘর্ষে দুইজন নিহত হয়েছে। আহত হয়েছে অন্তত ৩০ জন ব্যক্তি। শনিবার (২৬ ডিসেম্বর) সকালে প্রায় দেড় ঘণ্টাব্যাপী সংঘর্ষে এ হতাহতের ঘটনা ঘটে।

নিহতরা হলেন, প্রজারকান্দা গ্রামের নূর হোসেনের ছেলে বাদল মিয়া (৪৫) ও শান্তিপুর গ্রামের মৃত লাল মিয়ার ছেলে মিরাশ আলী (৭০)।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্র জানায়, মৃগা ইউনিয়নের শান্তিপুর ও প্রজারকান্দা গ্রামের লোকজনের মধ্যে দীর্ঘদিন ধরে নানা বিষয় নিয়ে বিরোধ চলছিলো। শুক্রবার (২৫ ডিসেম্বর) স্থানীয় টেম্পুস্ট্যান্ডে টেম্পুতে লোক ওঠানোকে কেন্দ্র করে দু’গ্রামের কয়েকজনের সঙ্গে ঝগড়া হয়। রাতে আমিরগঞ্জ বাজারে দু’পক্ষে এসব নিয়ে সালিশে বসে। সেখানে প্রজারকান্দা গ্রামের আতাউরকে মারধর করে শান্তিপুরের লোকজন।

এর জেরে আজ শনিবার সকাল নয়টার দিকে দু’পক্ষের অন্তত হাজার দুই হাজার লোক দেশিয় অস্ত্রশস্ত্র নিয়ে বাজারের কাছে আন্ধাইর এলকায় সংঘর্ষে লিপ্ত হয়। প্রত্যন্ত এলাকা হওয়ায় সেখানে পুলিশের পৌঁছাতে কিছুটা দেরি হয়। পরে পুলিশ গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করে। আহতদের হবিগঞ্জ পাঠানো হয়েছে।

ইটনা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মুর্শেদ জামান জানান, দুই গ্রামের বাসিন্দাদের পূর্ব বিরোধের জেরে এ সংঘর্ষ হয়। এতে দু’জন নিহত হয়েছে। নিহতদের মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে পাঠানো হচ্ছে। বর্তমানে এলাকায় পুলিশ মোতায়েন রয়েছে।

সংশ্লিষ্ট খবর

Back to top button