দেশবাংলা

রমজানকে সামনে রেখে অস্থির, আশুলিয়ার নিত্যপণ্যের বাজার

রমজানকে সামনে রেখে শিল্পাঞ্চল আশুলিয়ার বাজারগুলোতে নিত্য প্রয়োজনীয় পণ্য সামগ্রীর দাম এখন লাগামহীন। দ্রব্য মূল্যের চলমান উর্দ্ধগতিতে পোশাক শ্রমিকসহ সাধারণ ক্রেতারা দিশেহারা। তাই বাজার নিয়ন্ত্রণে, বিশেষ মনিটরিং টিম গঠনের দাবী জানিয়েছেন নিম্ন আয়ের খেঁটে খাওয়া মানুষসহ, সচেতন মহল।

লাকি আক্তার, একজন পোশাক শ্রমিক। জীবন-জীবিকার প্রয়োজনে, আজ থেকে প্রায় ৪ বছর আগে, সুদূর সাতক্ষীরা থেকে ছুটে আসেন, শিল্পাঞ্চল আশুলিয়ায়। প্রতিদিন সকালে কর্মব্যস্ততা শেষে এভাবেই ছুটে চলেন গার্মেন্টস এর কাজে। ভালই চলছিল তার জীবন-যাপন। মাস শেষে যে টাকা তিনি আয় করেন, তার বড় একটা অংশ তুলে দিতেন, বাড়িতে স্বজনদের হাতে।

কিন্তু মহামারী করোনা ভাইরাস আর রমজানকে সামনে রেখে, নিত্য প্রয়োজনীয় পণ্যের দাম বেড়েছে প্রায় দ্বিগুন।  আর তাই হতাশার ছাপ লাকির চোখে মুখে। শুধু লাকি আক্তার নয়, এমন অসংখ্য নারীর বসবাস শিল্পাঞ্চল আশুলিয়ায়,যাদের সবাররই জীবন গাঁথা  প্রায় একই রকম।

কাচাঁ বাজারে সবজীর দাম কিছুটা নিয়ন্ত্রণে থাকলেও, চাল,ডাল,তেল,পেঁয়াজ,চিনি,আটা,ছোলা ও মসলাসহ, নিত্য প্রয়োজনীয় পণ্যের বাজারে আগুন। সবচেয়ে বেশী বেড়েছে ভোজ্যতেলের দাম। আর গরু,খাঁশী ও মুরগীর বাজারেও দাম বেড়েছে কিছুটা।

পণ্য সামগ্রীর দাম বাড়ার কারনে, অসহায় শ্রমিকরা দিশেহারা। বললেন শ্রমিক নিম্নবিত্তসহ সাধারণ মানুষের কথা চিন্তা করে, বাজারে বিশেষ নজরদারী বাড়ানোর তাগিদ সচেতন মহলের।

নিয়মিত বাজার মনিটরিং করার পাশাপাশি, মাসব্যাপী বিশেষ মোবাইল কোর্ট পরিচালনার কথা জানান, উপজেলা চেয়ারম্যান। আগামি ৫ এপ্রিল থেকে আবারও লকডাউন ঘোষনায় দুশ্চিন্তায় রয়েছেন পোষাক শ্রমিকরা।

বাংলাটিভি/ডেস্ক রিপোর্ট

 

সংশ্লিষ্ট খবর

Back to top button