দেশবাংলা

চাঁদপুরে সড়ক দূর্ঘটনায় পিতা পুত্রসহ নিহত ৪

||কামরুজ্জামান টুটুল,চাঁদপুর||

চাঁদপুরের হাজীগঞ্জে স্কুটার ও কাভার্ড ভানের মধ্যে সংঘর্ষে পিতা-পুত্রসহ ৩ জন নিহত হয়েছেন। এ ঘটনায় স্কুটি চালকসহ ২ জন গুরুতর আহত ।

সোমবার ভোর রাতে উপজেলার বাকিলা ইউনিয়নের চাঁদপুর-কুমিল্লা আঞ্চলিক মহাসড়কের গোগরা নামক স্থানে এ ঘটনা ঘটে। নিহতরা হলেন, শাহরাস্তি উপজেলার টামটা দক্ষিণ ইউনিয়নের উয়ারুক গ্রামের পাটওয়ারী বাড়ির মৃত নাজির হোসেনের ছেলে এলেম হোসেন (৪৮), তার ছেলে ইকরাম হোসেন (২৫) ও একই ইউনিয়নের সুরসুই গ্রামের কাজী বাড়ির মোস্তফা সৈয়দের ছেলে আবু সুফিয়ান (৪০)।

দুর্ঘটনায় আহতরা হলেন, শাহরাস্তি উপজেলার টামটা ইউনিয়নের উয়ারুক গ্রামের পাটওয়ারী বাড়ির সোলেমান পাটওয়ারীর ছেলে মো. বিল্লাল হোসেন পাটওয়ারী (৪৫) ও স্কুটার চালক মো. শাহজাহান (৩৮)। গুরুতর আহত দু’জনের অবস্থাও আশংকাজনক।

বাকিলা এলাকার স্থানীয় ইউপি সদস্য ফারুক হোসেন বাংলা টিভি অনলাইনকে জানান, ভোররাতে সড়কের উপর মানুষজনের ডাক চিৎকারে ঘটনাস্থলে এসে দেখি ৩ ব্যক্তির লাশ সড়কের উপর পড়ে রয়েছে। এসময় আহতদের উদ্ধার করে চাঁদপুর সরকারী হাসপাতালে পাঠিয়ে দেই।

টামটা দক্ষিণ ইউনিয়নের ইউপি সদস্য মো. হোসেন জানান, এরা সবাই বড়শিতে মাছ শিকারের জন্য মেঘনা নদীতে যাওয়ার পথে দুর্ঘটনায় পতিত হয়।

হাজীগঞ্জ থানার উপ-পরিদর্শক জয়নাল আবেদীন জানান, ধারনা করা হচ্ছে কাভার্ড ভ্যান বা ট্রাক স্কুটিকে (চাঁদপুর- থ ১১-৬৩০০ ) পেছন থেকে ধাক্কা দিয়ে চলে যায়। এতে করে পেছনের সিটে বসা পিতা-পুত্রসহ একই এলাকার ৩ জন ঘটনাস্থলে নিহত হয়।

থানার অফিসার ইনচার্জ আলমগীর হোসেন জানান,পিতা-পুত্রসহ নিহত ৩ জনের লাশ থানা হেফাজতে রয়েছে এবং গুরুতর আহত ২ জন চাঁদপুর সদর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন। ময়নাতদন্তের জন্য নিহতদের মরদেহ চাঁদপুর সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হবে এবং আইন অনুযায়ী পরবর্তী ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

অন্যদিকে চাঁদপুরের হাজীগঞ্জে দুপুরে সড়ক দুর্ঘটনায় ফাতেমা বেগম (৭০) নামের এক বৃদ্ধের মৃত্যু হয়েছে। হাজীগঞ্জ পৌরসভাধীন কুমিল্লা-চাঁদপুর আঞ্চলিক মহাসড়কের ধেররা নামক স্থানে এ দুর্ঘটনা ঘটে। নিহত ফাতেমা বেগম পৌরসভাধীন ৩নং ওয়ার্ড ধেররা গ্রামের মৃত অলি উল্যাহর স্ত্রী।

হাজীগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা বৈশাখী বড়ুয়া তাৎক্ষনিক বিশ হাজার টাকা অনুদান দেয় নিহতের পরিবারকে।

বাংলাটিভি/এসএম/এবি

সংশ্লিষ্ট খবর

Back to top button
Close