fbpx
বাংলাদেশউন্নয়নবিজ্ঞান ও প্রযুক্তি

সোমবার ১,৩২০ মেগাওয়াটের পায়রা বিদ্যুৎকেন্দ্র উদ্বোধন

KSRM

পটুয়াখালীর কলাপাড়ায়, কাল উদ্বোধন হতে যাচ্ছে দেশের বৃহত্তম ১ হাজার ৩ শ‘২০ মেগাওয়াট পায়রা তাপ বিদ্যুৎ কেন্দ্র। ইতোমধ্যে শেষ হয়েছে, দুটি ইউনিটের বিদ্যুৎ উৎপাদনের নির্মাণ কাজ। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা উপস্থিত থেকে, এ বিদ্যুৎ কেন্দ্রটি উদ্বোধন করবেন। এ কেন্দ্র থেকে বিদ্যুৎ জাতীয় গ্রীডে যুক্ত হলে, দেশে বিদ্যুতের ঘাটতি অনেকটাই কমে যাবে বলে মনে করছেন বিশিষ্টজনেরা। কুয়াকাটার কলাপাড়ায থেকে সহকর্মী মনির হাওলাদারের প্রতিবেদন।

২০১৪ সালে বাংলাদেশ নর্থওয়েস্ট পাওয়ার কোম্পানি ও চায়না ন্যাশনাল মেশিনারি ইমপোর্ট অ্যান্ড এক্সপোর্ট করপোরশনের মধ্যে ১৩২০ মেগাওয়াট পায়রা তাপবিদ্যুৎ কেন্দ্র নির্মাণে চুক্তি স্বাক্ষর হয়। ২০১৬ সালের ১৪ অক্টোবর, পটুয়াখালীর কলাপাড়া উপজেলার ধানখালীতে, কয়লা ভিত্তিক এ বিদ্যুৎ কেন্দ্র নির্মানের ভিত্তি প্রস্থরের উদ্বোধন করেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

নির্মান কাজ শুরুর পর থেকে, নানা অনাকাঙ্খিত ঘটনার পরও, ২০২০ সালের ১৫ মে প্রথম ইউনিটের ৬৬০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ, বানিজ্যিকভাবে উৎপাদন কোরে, জাতীয় গ্রীডে দিতে সক্ষম হয়, বাংলাদেশ চায়না পাওয়ার কোম্পানি-বিসিপি সিএল। পরে দ্বিতীয় ইউনিটের ৬৬০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ উৎপাদন করে এ বিদ্যুৎ কেন্দ্রটি।

চলতি বছরের ডিসেম্বর মাস থেকে ১৩২০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ, জাতীয় গ্রীডে দিতে সক্ষম হবে এ পাওয়ার প্লান্টটি। আগামীকাল এ বিদ্যুৎ কেন্দ্রটি উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।শুধু পায়রা তাপ বিদ্যুত কেন্দ্রই নয়, ওই দিন সারাদেশে শতভাগ বিদ্যুতায়নের বিষয়টিও উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী।

১ হাজার একর জমির ওপর নির্মিত পরিবেশবান্ধব ১৩২০ মেগাওয়াট এ বিদ্যুৎ কেন্দ্রটি নির্মানে ব্যয় হয়েছে, ১৯ হাজার ৯শ‘ ৭৫ কোটি টাকা। প্রতিদিন এ কেন্দ্র থেকে বিদ্যুৎ উৎপাদনে প্রয়োজন হবে, ১৩ হাজার মেট্রিক টন কয়লা।

বাংলাটিভি/শহীদ

সংশ্লিষ্ট খবর

Back to top button