অন্যান্যবাংলাদেশ

সেনাবাহিনীকে সর্বোচ্চ ত্যাগ স্বীকারে প্রস্তুত থাকার নির্দেশ

মাতৃভূমির অখণ্ডতা রক্ষার পাশাপাশি যেকোনো প্রয়োজনে সেনাবাহিনীকে সর্বোচ্চ ত্যাগ স্বীকারে প্রস্তুত থাকার নির্দেশ দিয়েছেন, রাষ্ট্রপতি আব্দুল হামিদ।

রোববার চট্টগ্রামের হালিশহর আর্টিলারি সেন্টার ও স্কুল প্রাঙ্গণে ১, ২, ৩ ফিল্ড ও ৩৮ এয়ার ডিফেন্স রেজিমেন্ট আর্টিলারির জাতীয় পতাকা প্রদান অনু্ষ্ঠানে, কুচকাওয়াজ পরিদর্শন শেষে এ কথা বলেন রাষ্ট্রপতি।

এসময় তিনি আরও বলেন, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান যুদ্ধবিধ্বস্ত দেশের অর্থনৈতিক সীমাবদ্ধতা সত্ত্বেও একটি শক্তিশালী সশস্ত্রবাহিনী গড়ে তোলার উদ্যোগ নেন। তাঁর নির্দেশেই ১৯৭২ সালে কুমিল্লা সেনানিবাসে গড়ে তোলা হয় বাংলাদেশ মিলিটারি একাডেমি।

বঙ্গবন্ধুর আদর্শে ও মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় উদ্বুদ্ধ হয়ে বিভিন্ন বাহিনীর প্রতিটি সদস্য বঙ্গবন্ধুর লালিত স্বপ্নের সোনার বাংলা গড়তে নিরলস প্রচেষ্টা অব্যাহত রাখবেন বলেও, আশা প্রকাশ করেন রাষ্ট্রপতি।

মহান মুক্তিযুদ্ধে অংশগ্রহণ এবং সেনাবাহিনী তথা দেশমাতৃকার সেবায় বিশেষ অবদানের জন্য রেজিমেন্ট অব আর্টিলারির ইউনিটগুলোকে ন্যাশনাল স্ট্যান্ডার্ড হিসেবে জাতীয় পতাকা দেওয়া হয়। এর সূত্র ধরে সেনাবাহিনীর ১, ২ ও ৩ ফিল্ড রেজিমেন্ট আর্টিলারি এবং ৩৮ এয়ার ডিফেন্স রেজিমেন্ট আর্টিলারি পেয়েছে ন্যাশনাল স্ট্যান্ডার্ড।

অনুষ্ঠানে সেনাবাহিনী প্রধান জেনারেল আজিজ আহমেদ, সংসদ সদস্য ইঞ্জিনিয়ার মোশাররফ হোসেন, ওয়াসিয়া আয়েশা খান, মোছলেম উদ্দিন আহমেদ, আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা মন্ডলীর সদস্য ও সাবেক মন্ত্রী ফারুক খান, চট্টগ্রাম জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান এম এ সালাম, চট্টগ্রাম প্রেসক্লাবের সভাপতি আলী আব্বাসসহ আমন্ত্রিত অতিথি এবং সশস্ত্র বাহিনীর উর্দ্ধতন কর্মকর্তারা ছিলেন।

সংশ্লিষ্ট খবর

Back to top button
Close