অন্যান্যবাংলাদেশ

পোশাক শিল্প সাময়িক বন্ধের দাবি শ্রমিক সংহতির

কোয়ারেন্টাইন সময়ে পোশাক কারখানা বন্ধের পাশাপাশি শ্রমিকদের চলতি মাসের মজুরি, যাতায়াত ভাতাসহ অন্যান্য নিরাপত্তা ও সতর্কতামূলক ব্যবস্থা গ্রহণ করতে হবে বলে এক বিবৃতিতে দাবি জানিয়েছে, বাংলাদেশ গার্মেন্ট শ্রমিক সংহতি।

বিবৃতিতে আরো বলা হয়, করোনা আতঙ্কে প্রয়োজনীয় চিকিৎসা, খাদ্য ও পরিবহনের ব্যায় বৃদ্ধিতে তারা যেন বিপর্যয়ে না পড়েন, এ বিষয়ে সরকারকে কঠোর পদক্ষেপ নিতে হবে। প্রয়োজনে স্বল্পসুদে ঋণ, আর্থিক সহায়তা ও নিরাপত্তা দিতে আহ্বান জানানো হয়।

বিবৃতিতে বলা হয়, ইতোমধ্যে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানসহ রাজনৈতিক ও ধর্মী সভা সমাবেশ নিষিদ্ধ করা হলেও প্রতিটি কারখানায় হাজার হাজার শ্রমিক কাজ করেন, জনসমাগমে করোনা আক্রান্তে তা অত্যন্ত বিপজ্জনক। এছাড়াও কারখানাগুলোতে সচেতনতামূক কোন সরাঞ্জাম নিশ্চিত করা হয়নি।

এদিকে, করোনা ভাইরাসের কারণে বিশ্ববিদ্যালয়সহ সব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছে। বিশ্ববিদ্যালয়ের আবাসিক হল খালি করা হয়েছে। রাজনৈতিক ও ধর্মী সভা সমাবেশ নিষিদ্ধ করা হয়েছে। রাজধানীসহ বিভিন্ন জেলায় মানুষজনের আনাগোনা কমে গেছে।-আমাদের সময়.কম

সংশ্লিষ্ট খবর

Back to top button
Close