দেশবাংলা

ধর্ষণের প্রতিবাদে উত্তাল ঠাকুরগাঁও, রাজপথে হাজারো শিক্ষার্থী

স্লোগানে স্লোগানে মুখরিত, উই ওয়ান্ট জাস্টিস, আমার সোনার বাংলায় ধর্ষকদের জায়গা নাই, একাত্তরের বাংলায় ধর্ষকদের ফাঁসি চাই, যেখানেই ধর্ষক সেখানেই প্রতিরোধ, দাবি মোদের একটাই ধর্ষকদের ফাঁসি চাই। স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনের সদস্যদের ও রক্ত দানকারী সংগঠন ঠাকুরগাঁও ব্লাড ডোনারস্ সোসাইটি ও শিক্ষার্থীদের গলা ফাটিয়ে চিৎকারে নানা স্লোগানে কেঁপে উঠেছে ঠাকুরগাঁও শহরের রাজপথ।

বুধবার দুপুরে ঠাকুরগাঁও শহরের বড়মাঠের কেন্দ্রীয় শহীদ মিনার থেকে রক্তদানকারী স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন ঠাকুরগাঁও ব্লাড ডোনার্স সোসাইটি ও সাধারণ শিক্ষার্থীর ব্যানারে ধর্ষণ, নীপিড়ন ও নির্যাতনের প্রতিবাদে বিক্ষোভ র‌্যালি বের হয়।

র‌্যালিতে অংশ গ্রহণ করেন বিভিন্ন শ্রেণিপেশার কয়েক শত মানুষ। বিক্ষোভ র‌্যালিটি শহরের প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষীণ করে শহর চৌরাস্তায় বিক্ষোভ কারীরা রাজপথে অবস্থান নেয়। এ সময় স্লোগানে কাপতে থাকে শহরের রাজপথ। পরে সেখানে এক মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়।

মানবন্ধনে বক্তব্য রাখেন, ঠাকুরগাঁও ব্লাড ডোনার্স সোসাইটির সধারন সম্পাদক মো: রাজু ইসলাম রুবেল, সাংগঠনিক সম্পাদক আবু হানিফ শিশির, কোষাধ্যক্ষ রিয়াদ আহমেদ, কার্যনির্বাহী সদস্য আরিফুল ইসলাম আরিফ, সজীব সরকার সবুজ, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী ওলিউল্লাহ্ নিহান, সহ ঠাকুরগাঁওয়ের বিভিন্ন স্কুল কলেজের শিক্ষার্থীবৃন্দ।

ঘণ্টা ব্যপী মানববন্ধনে বক্তারা বলেন, সারা দেশে যে পরিমাণ ধর্ষণ ও নির্যাতনের ঘটনা ঘটছে তা বন্ধ করতে আইনের সর্বোচ্চ প্রয়োগ করতে হবে। কোন ধর্ষক যেনো আইনের ফাঁক ফকড় দিয়ে বেরিয়ে না আসতে পারে সেজন্য সজাগ থাকতে হবে এবং ধর্ষকদের সর্বোচ্চ শাস্তি মৃত্যুদন্ড নিশ্চিত করতে হবে।

তবেই দেশটাকে হায়না মুক্ত ও ধর্ষন মুক্ত করা সম্ভব। সেই সাথে নারী স্বাধীনতা ও নারীদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করার দাবি জানান বক্তারা।

মামুনুর রশিদ, ঠাকুরগাঁও প্রতিনিধি

সংশ্লিষ্ট খবর

Back to top button