বিনোদনঢালিউড

রাস্তায় বসে পড়লেন শ্রীলেখা!

টালিউড অভিনেত্রী শ্রীলেখা মিত্র বর্তমানে ভেনিসে আছেন। ভেনিস চলচ্চিত্রে উৎসবে অংশ নিতে সেখানে গিয়েছিলেন তিনি। ৭ সেপ্টেম্বর ভেনিসে প্রদর্শিত হয়েছে শ্রীলেখা অভিনীত ‘ওয়ান্স আপন আ টাইম ইন কলকাতা’সিনেমাটি। এটি পরিচালনা করেছেন আদিত্য বিক্রম সেনগুপ্ত।

নিজের ফেসবুকে ভেনিসের বিভিন্ন তথ্য শেয়ার করছেন শ্রীলেখা। এর আগে জানিয়েছেন প্রেমের প্রস্তাব পাওয়ার কথা। এবার রাস্তায় বসে পড়লেন এ অভিনেত্রী। তাও আবার, দাম শুনেই।

ঘটনা হলো- ভেনিস থেকে ফেরার পথে করোনা টেস্টে রিপোর্ট লাগবে। করোনা টেস্ট করাতে গিয়েই মাথায় হাত পড়ল অভিনেত্রী। সে ছবি শেয়ার করেছেন শ্রীলেখা। ক্যাপশনে লিখেছেন, ‘করোনা টেস্ট ১১২ ইউরো অর্থাৎ ১০ হাজার রুপি! মাথায় হাত ভেনিস (না ফেরত) অভিনেত্রীর।’

শেয়ার করা ছবিতে, সাদা লম্বা জামায় দেখা গেছে শ্রীলেখাকে। তার চোখে কালো চশমা, পাশে রাখা মাঝারি ধরনের একটা হলুদ ব্যাগ। আর পায়ে স্যান্ডেল।

এর আগে, ভেনিসে গিয়ে বিয়ের প্রস্তাব পেয়েছেন শ্রীলেখা মিত্র। স্থানীয় একটি রেস্তোরাঁর সুদর্শন এক যুবক তাকে এ প্রস্তাব দিয়েছেন। নিজের ফেসবুকে ছবি শেয়ার করে বিষয়টি জানিয়েছেন শ্রীলেখা।

জানিয়েছেন, ওই ওয়েটারের রূপে মুগ্ধ শ্রীলেখা। তাই দাম জিজ্ঞেস না করেই এক প্লেট মাছ অর্ডার করে ফেলেছেন। যার জন্য শ্রীলেখাকে গুনতে হয়েছে ৬৩ ইউরো, যা ভারতীয় রুপিতে প্রায় পাঁচ হাজার।

ওই যুবকের সঙ্গে আলাপ করে শ্রীলেখা জানতে পারেন, রেস্তোরাঁর কাজের পাশাপাশি মডেলিং করেন। তার আর শ্রীলেখার জুটি ভালো জমবে।

বিয়ের প্রস্তাবে রাজি কিনা জানতে চাইলে ভারতীয় সংবাদমাধ্যমকে শ্রীলেখা বলেন, ‘মাথা খারাপ? কুকুর, নিজের মেয়েকে সামলানোর পর অত ছোট প্রেমিককে সামলাতে পারব না! ও আমার মেয়ে মাইয়্যার প্রেমিক হওয়ার যোগ্য!’

বাংলাটিভি/ সাকিব

সংশ্লিষ্ট খবর

Back to top button